Home সিনেমা টলিউড কান চলচ্চিত্র উৎসবে বিজয়িনী বঙ্গতনয়া সিনেমাটোগ্রাফার মধুরা পালিত
হারিয়ে

হারিয়ে যাওয়া মুভি : পর্ব ৩

কম বাজেট, কম প্রচার, বড় স্টার না থাকার জন্য কিংবা যুগের থেকে এগিয়ে থাকার জন্য হারিয়ে যায় কত ভাল ভাল সিনেমা। সেইরকম মানুষের অগোচরে...
ববি

জানেন কি ‘ববি’ সিনেমার পিছনে মজার ঘটনা গুলো ?

১৯৭৩ সালে মুক্তি পায় ববি । সেই যুগে দাঁড়িয়ে অনেক সাহসী ছিল সিনেমাটি। ডিম্পল কাপডিয়া খোলামেলা পোষাক ছাড়াও আরেকটি দিকে প্রথম ছিল সিনেমাটি। কি...
সিরাজের

বড়পর্দার এই সিরাজের বেগম কতটা সফল ছিল ?

৪৬ বছর আগে শ্রীপারাবতের উপন্যাস অবলম্বনে সুশীল মুখোপাধ্যায় সৃজন করেছিলেন 'আমি সিরাজের বেগম'। নামভূমিকায় সন্ধ্যা রায়। বিশ্বজিৎ চট্টোপাধ্যায়-সন্ধ্যা রায়-বাসবী নন্দী অভিনীত সেই ছবি বছরের...

কান চলচ্চিত্র উৎসবে বিজয়িনী বঙ্গতনয়া সিনেমাটোগ্রাফার মধুরা পালিত

প্রথম কান ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে পুরস্কার নিতে চলেছেন কোনো বাঙালি মেয়ে। তাও ক্যামেরার কাজের জন্যে। সিনেমাটোগ্রাফিতে সামগ্রিকভাবে বিশেষ কৃতিত্বের সাক্ষর রাখার জন্য এনজেনেয়াক্স স্পেশাল এনকারেজমেন্ট অ্যাওয়ার্ড দিয়ে কলকাতার মেয়ে মধুরা পালিতকে সম্মানিত করতে চলেছে কান কর্তৃপক্ষ। আঠাশ বছরের মধুরাই প্রথম ভারতীয় যিনি এই বিভাগে পুরস্কার পেলেন।

মধুরার বাবা মাও ফটোগ্রাফার তাই শৈশব থেকেই ক্যামেরা প্রেম। সেন্ট জ়েভিয়ার্সে র ছাত্রী হওয়াকালীন ক্যামেরা কে পাকাপাকি ক্যারিয়ার করবেন ভাবেন। প্রথমে সেন্ট জ়েভিয়ার্স, পরে এসআরএফটিআই (সত্যজিৎ রায় ফিল্ম অ্যান্ড রিসার্চ ইনস্টিটিউট)-এর প্রাক্তনী মধুরা। ‘দ্য পেপার বয়’ ছাড়াও তাঁর ‘ওয়াচমেকার’, ‘দ্য লাস্ট রেন’-এর মতো একাধিক ছবি সমালোচকমহলে প্রশংসিত। পুরুষ ক্যামেরাম্যানদের রাজত্বে এক ছোটোখাটো মেয়ের এই বিজয়ীনি হওয়া কুর্নিশযোগ্য।

মধুরার ছবিগুলির মধ্যে সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ‘ওয়াচমেকার’ (২০১৭), ‘আমি ও মনোহর’ (২০১৭), ‘সম্পূরক’ (২০১৮), ‘পেপার বয়’ (২০১৫) এবং একটি ভার্চুয়াল রিয়ালিটি শর্ট ফিল্ম, যা নতুনধারার কাজ। শুধু ডকু ছবি কি আর্ট ফিল্ম নয় বানিজ্যিক ছবিতেও কাজ করতে চান মধুরা। তাই তাঁর ক্যামেরার সামনে দেখতে চান মেয়েবেলার হার্টথ্রব হৃতিক রোশনকে। মে মাসেই তিনি ‘কানে’র উদ্দেশ্যে রওয়ানা দেবেন।

MUST READ

মহালয়ার সেরা পাঁচ ‘ মহিষাসুরমর্দিনী ‘

আকাশবাণী কলকাতার 'মহিষাসুরমর্দিনী 'র পর টেলিভিশনে 'মহিষাসুরমর্দিনী' সবার কাছেই ভালোবাসার। কিন্তু এখন অনেক চ্যানেল হওয়া সত্ত্বেও টিভির মহালয়া দর্শকের বিরক্তি উদ্রেক করে। সেই মেগার...

পুজোর সেরা পুরুষ কে ? এবার পুজোয় অভিনব উৎসব !

পুরুষ। পুরুষ যেন পড়ে পাওয়া চোদ্দ আনা। নারী দিবস নিয়ে হৈচৈ। নারী দিবসের দরকার তো আছেই কিন্তু পুরুষ দিবস কবে কোনদিন আমরা কজন জানি?...

এবার মহালয়াতেই অকাল বোধন !

দেবী দুর্গার ত্রিনয়ন, যার জ্যোতিতে আলোকিত বিশ্ব। সৃষ্ট প্রাণ। আমরা দেবী দুর্গাকে চোখে দেখিনি দেখিনা। কিন্তু দুর্গা মানে এক শক্তি। নারী শক্তি। ধরিত্রীতে সকল...

নটবর ১০০তেও নটআউট !

বাবা সতু রায় ছিলেন নির্বাক যুগের বিখ্যাত অভিনেতা। কিন্তু তাতে ছেলের বিশেষ কিছু সুবিধে হয়নি। তাঁর জন্ম বরিশালে। বাবা পরে চলে আসেন কলকাতায়। শেষে...