Home ফিরে দেখা যে গান গাইতে টাকা নেননি কিশোর কুমার !
পাশা

লোকচক্ষুর আড়ালে এক মহানায়িকার সন্ন্যাসিনী হয়ে ওঠার গল্প !

১৯৭৮ সালে 'প্রণয় পাশা' ফ্লপ হওয়ার পর অভিনয় জীবন থেকে সরে নিজেকে লোকচক্ষুর আড়ালে নিয়ে যান সুচিত্রা সেন। ফ্লপটাই যে কারন তা নয়। ইন্ডাস্ট্রির...
অপরাজিতা

“আমার ছবি, আমি তোকে বাদ দিতেই পারি!” ঋতুপর্ণ বলেছিলেন অপরাজিতাকে !

"- ও তোমার কদর করতে পারবে ?" "- বাবু, কদর তো কত লোক করে বল... ভালোবাসার সাহস কতজনের আছে বল তো ? " এই বিখ্যাত দৃশ্যে...
কণিকা

” আমার মৃত্যুর খবর যেন মিডিয়াকে না জানানো হয়।” – কণিকা মজুমদার !

তিনি 'রক্তকরবী' র নন্দিনী। কখনও তিনি মণিমালিকা, কখনও তিনি দময়ন্তী, কখনও তিনি প্রতিমা৷ ‘মণিহারা’, ‘চিড়িয়াখানা’, ‘হার মানা হার’ ছবিতে এরা তাঁরই অভিনীত চরিত্র৷ কণিকা...

যে গান গাইতে টাকা নেননি কিশোর কুমার !

কিশোর কুমার। যিনি আজ বেঁচে থাকলে নব্বই বছরের চিরকিশোর হতেন।আজ বলব এমন এক গল্প যা মন কেমন করাবেই। কিশোর কুমার পেমেন্ট ব্যতীত কোন গান রের্কডিং করতেন নাহ। গান পছন্দ না হলে রেকর্ডিং না করেও চলে যেতেন। ওঁনার মুডের ওপর সবটা নির্ভর করত। এ হেন শিল্পীকে দিয়ে গান রের্কডিং করা খুবই ঝকমারি।

গান রের্কডিং চলছে সুখেন দাস পরিচালিত ছবি ‘অমর কন্টক’ -এর। গান গাইতে চলে এসেছেন কিশোর কুমার। গানের সুরকার অজয় দাস। অজয় দাস সুখেন দাস দুই ভাই। অজয় দাস ও কিশোর কুমার সেসময় জুটি। যে গানই করছেন হিট। অজয় দাস এতটাই উচ্চমানের সুরকার ছিলেন। কিন্তু শেষ জীবনে প্রতিভার দাম, সম্মান পাননি। কিন্তু অজয় দাসের সৃষ্ট গান গুলো আজও শ্রোতাদের মনে। শুনলে শ্রোতারা থমকে শুনবে এমন সব গান। সেই সুরকারের গান গাইতে এসছেন কিশোর কুমার। হঠাৎ রের্কডিং থামিয়ে কিশোর কুমার ডেকে পাঠালেন ‘অমর কন্টক’ ছবির পরিচালক সুখেন দাসকে। সুখেন বাবু তো ভাবলেন আবার কি ভুল হল ! কিশোর কুমার ডেকে পাঠানো মানে তো বড়সড় সমস্যা। গান পছন্দ হলনা নাকি পেমেন্ট কম হয়েছে ? ছুটে গেলেন সুখেন দাস। কিশোর কুমার চুপচাপ বসে।সুখেন কে দেখে কিশোর কুমার জল ভর্তি চোখে বললেন ” এ কি গান গাওয়াচ্ছেন আমাকে দিয়ে?”

কি সাংঘাতিক বাস্তব গানের কথা ,

 

” কেন দিসরে চুমুক তবে বিষয়ের বিষে?
সবই তো ধূলোয় যাবে মিশে,
থাকবে না গায়ে তোর
ঝলমলে দামী ওই বেশ,
চিতাতেই সব শেষ,
হায়! চিতাতেই সব শেষ,
এই তো জীবন । “

কে লিখেছেন এই গানের কথা ?

“সাধের এই দেহটাও
একমুঠো সাদা ছাই হবে,
সবই তো পিছে পড়ে রবে,
চুকে যাবে সময়ের
যত কিছু হিসেব-নিকেশ,
চিতাতেই সব শেষ,
হায়! চিতাতেই সব শেষ,
এই তো জীবন,
হিংসা, বিবাদ, লোভ,
ক্ষোভ, বিদ্বেষ –
চিতাতেই সব শেষ ।। “

সুখেন দাস বললেন অজয় দাসের সুরে গান লিখেছেন গৌরী বাবু। গৌরীপ্রসন্ন মজুমদার। কিশোর কুমার মন্ত্রমুগ্ধ। অনেকক্ষন চুপ করে থেকে কিশোর কুমার বললেন ” আমি আমার জন্ম নিয়ে জন্মস্থান নিয়ে গান গেয়েছি কিন্তু এমন মৃত্যুর গান গাইনি। বাংলার সুরকার গীতিকার রা আমায় যেটা গাইয়ে ছাড়লেন। আমি এই গান গেয়ে একটা টাকাও নিতে পারবো না। এই গান গেয়ে টাকা নিলে সেটা গানের সাধনা এই জীবনকে ছোটো করা হবে। কোনো পেমেন্ট করতে হবেনা সুখেন এই গান গাইবার জন্য। বুকে জড়িয়ে ধরলেন কিশোর কুমার সুখেন দাসকে। তৈরী হল চিরঞ্জিত মুনমুন সোমা মুখার্জ্জী দীপঙ্কর সুমিত্রা অভিনীত সুখেন দাসের ছবি ‘অমর কন্টক’ এর গান। এই গান রিলিজ হতেই সুপার ডুপার হিট ক্যাসেট ও ছবি। ‘চিতাতেই সব শেষ’ … গান আজও সবাইকে কাঁদিয়ে ছাড়ে এতটাই গানের কথার জোর সুরের জোর দৃশ্যায়নের জোর আর সর্বোপরি কিশোর কন্ঠ।

“এই তো জীবন,
হিংসা বিবাদ লোভ,
ক্ষোভ বিদ্বেষ,
চিতাতেই সব শেষ,
হায় চিতাতেই সব শেষ
এইতো জীবন।। “

Written By – শুভদীপ বন্দ্যোপাধ্যায়

MUST READ

১০০ দিনে কথনীয় ‘কন্ঠ’

একশো দিন একশোরও বেশী কন্ঠে উচ্চারিত আজ শিবপ্রসাদ-নন্দিতা জুটির 'কন্ঠ' ছবিটি। উইনডোজ প্রযোজিত 'কন্ঠ' ছবিটি একশো দিন পার করল।'কন্ঠ' ছবির অনুপ্রেরণা একজন ক্যান্সার রোগ...

“ঋতুর মা থেকে শিবুর মায়ের চরিত্রে অভিনয় করতে পেরে আমি ধন্য।” – অনসূয়া মজুমদার

'মহাপৃথিবী, 'তাহাদের কথা','সম্প্রদান','দেবাঞ্জলী','মুখার্জীদার বউ','গোত্র' ... এক বিশাল সফরের নায়িকা অভিনেত্রী অনসূয়া মজুমদার -এর মুখোমুখি। গুলগাল.কম কে অনসূয়া মজুমদার জানালেন তাঁর রিল টু রিয়েল লাইফের...

রজনীগন্ধা ঝরে গেলেন !

চলে গেলেন বিদ্যা সিনহা। যিনি আলোচনা প্রচারের বাইরে ছিলেন। বলিউড মানে শুধু বিদ্যা বালান নন। তাঁর আগেও সত্তর দশকে দমকা মুক্ত হাওয়ার মতো মধ্যবিত্তর...

পুজারিনীর এই মিমিক্রি না দেখলে কিন্তু মিস করবেন !

পোস্টমাস্টার থেকে বড় পর্দায় উঠে আসা পূজারিণী কিন্তু এখন অনেক পরিণত , হাতে রয়েছে অনেক গুলো ছবি সাথে কিছু ওয়েব এর কাজ । সদ্য...