গায়ক যখন নায়ক !

এবার গানের পালা থামিয়ে দিয়ে অভিনয় জগতে এন্ট্রি নিচ্ছেন তিনি, যদিও এর আগে থিয়েটার জগতে পা রেখেছেন এবং বেশ প্রশংসা পেয়েছেন তাঁর অভিনয়ের জন্য, তবে এবার জার্নিটা আলাদা।

আর তাকে কেবল গায়ক বলা সাজে না। কারণ গায়ক বাদেও এখন তাঁর নামের আগে জুড়েছে নতুন একটি বিশেষন। গায়ক রূপঙ্কর বাগচী‘কে চেনেন না এমন মানুষ খুজতে গেলে বাংলার প্রায় আগাগোড়া ঘোরা হয়ে যাবে। এতোদিন গান গেয়েছেন ‘বাইশে শ্রাবণ’, ‘জাতিস্মর’র মতো ছবিতে। এবার গানের পালা থামিয়ে দিয়ে অভিনয় জগতে এন্ট্রি নিচ্ছেন তিনি, যদিও এর আগে থিয়েটার জগতে পা রেখেছেন এবং বেশ প্রশংসা পেয়েছেন তাঁর অভিনয়ের জন্য, তবে এবার জার্নিটা আলাদা।

সৌজন্যে পবিত্র জল এবং কুমার প্রযোজিত ‘রং রুট’। না, ভূল পথে পা রাখেননি। পরিচালক কৌশিক সেনগুপ্ত পরিচালিত শর্টফিল্ম ‘রং রুট’ ধরেই অভিনেতার ট্যাগ লাগতে চলেছে এই গায়কের ক্যারিয়ারে। রূপঙ্কর ছাড়াও কাস্টিংয়ে থাকবেন পায়েল, মাফিন,কমলেশ, মৌমিতা, আকাশ, পরিতোষ এবং চিত্রা সেন’রা। অভিনয়ের পাশাপাশি মিউজিকের হেঁশেলেও জ্বাল দিয়েছেন রূপঙ্কর বাগচী। ডিওপি’তে থাকছেন অভিজিৎ নন্দী। তাঁর সঙ্গেই সন্দীপ পাল সামলাবেন এডিটরের পদ। ছবির পরিচালনা তো আছেই। একই সঙ্গে শর্টফিল্মটির স্ক্রিপ্ট এবং গানও নিজের কলমেই লিখেছেন কৌশিক সেনগুপ্ত।

আরও পড়ুন : টলিপাড়ার স্টাইল স্টেটমেন্ট, রিপোর্ট দিলো গুলগাল!

রূপঙ্কর এর আগেও অল্প একটু অভিনয় করেছেন। তবে অভিনেতা হিসেবে অভিষেক করছেন পরিচালক কৌশিক সেনগুপ্ত’কে অনুসরণ করেই। ছবির প্রধান চরিত্র রোদ্দুর। এই চরিত্রটিই এগিয়ে নিয়ে যাবেন রূপঙ্কর। রোদ্দুর কথা বলতে ভালোবাসে। তবে তাঁর বন্ধুদের কাছে সে একটু বাচাল টাইপের। অর্থাৎ রোদ্দুরের এই বকবক করার অভ্যেসটা পছন্দের নয় তাঁর বন্ধুদের কাছে। রোদ্দুর মাঝে মধ্যে গলা ঝেড়ে গানও গায়। তবে সবার সামনে না। রোদ্দুরের বকবক করার মতো এটাও একটা অভ্যেস। সময় পেলে সে গান বাঁধে একাকী। গান তাঁর ভবিষ্যৎ নয়, একথা রোদ্দুর ভালোমতোই বোঝে। গান নিয়ে বন্ধুদের কোনো অভিযোগ নেই। সমস্যা শুধু তাঁর বকবক করার অভ্যেস নিয়ে।

এনিয়েই একদিন শুরু হয় বাজি ধরাধরি। বাজির বিনিময় রাখা হয় ৫ লক্ষ্য টাকা। রোদ্দুর যদি কোনো ক্রমে ছয় মাস চুপ থাকতে পারে তাহলে সেই টাকার মালিক হবে রোদ্দুর। কথা মতো শুরু হয় কাজ। রোদ্দুর রাজিও হয়ে পড়ে। তবে বাজিতে জিততে গিয়ে দিন দিন আরও একা হয়ে পড়ে রোদ্দুর।
গায়ক হিসেবে ঘর ভর্তি সার্টিফিকেটের মালিকানা রূপঙ্করের হাতে। যদিও অভিনেতা হিসেবে এখনো খুটিয়ে গাড়তে পারেননি। গায়কের অভিনেতা হওয়ার নেপথ্য গল্প ভালো মতোই সাজিয়েছেন পরিচালক। এবার তাদের লক্ষ্য দর্শকদের মনে ছড়িয়ে যাওয়া।