টালিগঞ্জের ট্র্যাকে দর্শনা বণিক !

দর্শনা বণিক

সাউথ মেতেছে দর্শনার যাদুতে, এবার পালা বাঙলার! সাউথইন্ডিয়ান মুভি আটালুগুতে লিড চরিত্রে দর্শকের মন জয় করে টালিগঞ্জে বেশ অনেকদিন পর আবার ফিরছেন অভিনেত্রী দর্শনা বণিক। অভিমন্যু মুখার্জীর পরবর্তী ছবিতে ওমের বিপরীতে লিড রোলে দেখা যাবে তাকে। ছবির নাম এখনো নিশ্চিত নয়, মুহরত মিটিয়ে কলা কুশলীরা এখন অধির অপেক্ষাতে শুটিং শুরুর! এই প্রথম বারের জন্য এস.কে-র মতো একটা বড় ব্যানারে কাজ করতে পেরে বেজায় খুশি দর্শনা। এই ছবির সঙ্গেই বাংলা ইন্ডাস্ট্রীতে কমার্শিয়াল ছবির পথ চলা শুরু দর্শনার।

গুলগালের সঙ্গে একান্ত গল্পে তাকে যখন জিজ্ঞাসা করা হলো, তার ভালোলাগার কথা জানাতে, ভীষণ খুশি দর্শনা জানালেন, ছবির চরিত্র তার খুব পছন্দের। মিমি নামের এই মেয়েটির চরিত্র ছবিতে খুবই ইমপর্টেন্ট। তারই বাবার দোকান ঘিরে এগিয়ে চলবে ছবির গল্প। কমার্শিয়াল রোলে টালিগঞ্জে ফুল ফ্লেজেড জার্নি শুরু করতে ভীষণ একসাইটেড তিনি! দর্শনার জন্য যদিও রোলটা যথেষ্ট চ্যালেঞ্জের ছিল। অভিনেত্রী জানালেন, এক দিকে কমার্শিয়াল কমেডি ছবি, আর তার উপর সোহম, শ্রাবন্তী, বিশ্বনাথ, শুভাশিসের মতো এক্সপিরিয়েন্সড অভিনেতা দের সঙ্গে স্ক্রীন শেয়ারিং; সব মিলিয়ে নিজেকে অনেকখানি ভাঙতে হয়েছে তাকে। দর্শনা বণিককমার্শিয়াল ড্রামা বুঝে নিয়েছেন যত্ন করে। ‘কমার্শিয়াল ছবির অভিনেত্রীদের অভিনয় দেখতে হচ্ছে অনেক বেশী করে, মিডিলক্লাস সেন্টিমেন্টের সঙ্গে যাতে নিজেকে রিলেট করানো যায়, অনেক খাটতে হয়েছে। আর কমেডির এসেন্স বুঝতে বেশ অনেকগুলো কমেডি মুভিও দেখে ফেলেছি।’, জানালেন দর্শনা! অভিনয়ের ব্যাপারে কিন্তু যথেষ্ট কনফিডেন্ট তিনি। ‘ছোট ছোট কাজ করে স্ট্রাগল করে উঠে এসেছি। এখন যদি পিছনে তাকাই আর ভয় করে না। দর্শনা বণিকহঠাৎই খ্যাতি পেয়ে গেলে হয়তো ইনসিকিয়োর হয়ে পরতাম। আমি কিন্তু যথেষ্ট কনফিডেন্ট; আমার এক্সপিরিয়েন্স ভীষণ ভালো, সবটা নিয়েই সামনে এগোতে চাই।’, মিষ্টি হেসে জানালেন অভিনেত্রী। খ্যাতি পেতে গেলে যে একটা খিদে থাকতে হয়, বেশ বোঝা গেল দর্শনার সঙ্গে কথা বলে, জানালেন,’ সব ভাষায়, সব রকম ভালো কাজ করতে চাই। ওয়েব সিরিজ হোক বা সিনেমা, রোল যদি ভালো হয়, আমার কাছে সব সময় গ্রহণযোগ্য!’ কমেডির পাশাপাশি ক্যারেক্টার রোলের ক্ষেত্রেও কিন্তু পিছিয়ে নেই দর্শনা। অভিষেক বাগচীর পরের ছবিতেই যে একটা বেশ অন্যরকম চরিত্রে পাওয়া যাবে তাকে সে কথাও জানালেন, ক্যারেক্টার রোলের প্রশ্ন করতে। তবে এখন ফার্স্ট প্রায়োরিটি অবশ্যই অভিমন্যুর নতুন ছবি। নাম ঠিক হয় নি এখনো, তবে ছবি নিয়ে ভীষণ আশাবাদী দর্শনা। দর্শকের মুখের হাসি, আর মনের আনন্দটুকু সম্বল থাক। দর্শনাকে নতুন রূপে দেখার জন্যও অপেক্ষাতে থাকি আমরা।