দুই বীরপুরুষের অ্যাডভেঞ্চার !

অ্যাডভেঞ্চারের

মুক্তি পেল রাজ চক্রবর্তীর নতুন ছোটোদের ছবি ‘অ্যাডভেঞ্চারস অফ জোজো’র অফিসিয়াল ট্রেলার। ভেঙ্কটেশের প্রযোজনায় এই বছরের শেষেই ডিসেম্বরে বড় পর্দায় আসছে জোজোর অ্যাডভেঞ্চারের গল্প। বড়দিনে ছোটোদের মন খুশী করা খবর। এ ছবি তে কিন্তু দেব জিতের মতো কোনো বিগষ্টার নেই। নেই কোনো বলিস্টার।আছে শুধু দুজন ছোটো বাচ্চা ছেলে আর তাদের অ্যাডভেঞ্চারের গল্প। তার মানে ছবির গল্প বলাই সব।আর সে কারনেই ছবির চিত্রনাট্যকার নির্বাচনে খামতি রাখেননি রাজ। এখনকার সেরা চিত্রনাট্যকার পদ্মনাভ দাশগুপ্ত করেছেন এ ছবির স্ক্রীনপ্লে ও ডায়লগ। সঙ্গে অভিনয়েও রয়েছেন পদ্মনাভ। পদ্মনাভর কাছে বড় চ্যালেঞ্জ এ ছবি নিজেকে প্রমাণ করার। আর সেটা পারবেনও তিনি। অসাধারন কন্ঠস্বরের অধিকারী পদ্মনাভ তো কলকাতা দূরদর্শনে সংবাদ পাঠ থেকেই শুরু করেছেন ক্যারিয়ার। তাই অভিনয় মন্দ করবেন না। সঙ্গে আছে তার নাট্যজগতের অভিজ্ঞতা। সিরিয়াল সিনেমাতেও করেছেন পার্শ্বচরিত্রে যথাযথ অভিনয়। ছবির মুখ্যচরিত্রে দেখা যাবে দুজন খুঁদে অভিনেতাকে। যশোজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়। অভিনেতা জয়জিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছেলে এই ছবি দিয়েই ডেবিউ করছে টলিউডে। যশোজিৎ ‘দাদাগিরি’ তে বহুবার প্রথম হয়েছে এর আগে। কতটা স্মার্ট সে, আমরা আগেই দেখেছি।জয়জিৎ পুত্র র টলিউড অভিষেক ছবিতে অনেক শুভেচ্ছা।

‘অ্যাডভেঞ্চারস অফ জোজো’ সিনেমায় রয়েছে আরো চমক।

‘সহজপাঠের গপ্পো’ ছবি ইতিমধ্যে সবার কাছে আদৃত। সেই ছবির পুরস্কারপ্রাপ্ত বিখ্যাত শিশু অভিনেতা সামিউল আলমকেও দেখা যাবে ‘অ্যাডভেঞ্চারস অফ জোজো’ -য়। জ্যেঠু ভাইপোর জঙ্গল সাফারি। জ্যেঠুর বাড়ি (পদ্মনাভ জ্যেঠুর ভূমিকায়) বড়পাহাড়িতে ঘুরতে গিয়ে জোজোর (যশোজিৎ) দেখা হয় মাহুতের ছেলে শিবুর ( সামিউল) সঙ্গে। এরপর জঙ্গলে জোজো ও শিবু দেখতে পায় বাঘ মরে পড়ে আছে। কি গোপন রহস্য উদ্ধার হয় সেখান থেকে? উদ্ধার হয় পোচার মুনিয়া হাজারির মতলব। জোজো কি পারবে পাচারকারীদের হাত থেকে বাঘ চেঙ্গিসকে বাঁচাতে?এক সাহসী বালক জোজো ও তাকে টারজান রূপী সাহায্যকারী আরেক বালক দু বন্ধুর গল্প।ছবিতে এছাড়াও দেখা যাবে টেলিভিশনের জনপ্রিয় মুখ জিতু কামাল , মানালী মণীষা দে কে। এছাড়াও চমকপ্রদ লুকে রয়েছেন রুদ্রনীল ঘোষ। ছবির সঙ্গীত পরিচালনা করেছেন ইন্দ্রদীপ দাশগুপ্ত। ছবির গান লিখেছেন কবি গীতিকার শ্রীজাত বন্দ্যোপাধ্যায়। আবহ সঙ্গীতও ছবিটিকে অন্য মাত্রা দিয়েছে। অসাধারন ক্যামেরার কাজের আবার প্রমাণ দিলেন চাঁদের পাহাড় আমাজন পেরিয়ে সৌমিক হালদার। তাঁর সঙ্গে মানস গাঙ্গুলী

একটা মন ভালো করা ছোটোদের সাফারি ছবি বড়দিনে। আমরা অহেতুক এই বাংলা ছবির VFX এফেক্ট হলিউডের ছবির সঙ্গে তুলনা না করে একটা ছোটোদের মন দিয়ে দেখাই বরং ভালো। আমরা যখন ছোটোবেলায় ছবি দেখতাম একরাশ মনে রহস্য নিয়ে ছবি দেখতে যেতাম। জঙ্গলের বাঘ হাতি গন্ডার রূপোলি পর্দায় দেখে মজা পেতাম।ডাইনোসর কিংকং দেখে ভয় পেতাম। কিছু হলিউড ছবি দেখে নিজেদের বোদ্ধা না বানিয়ে, সমালোচনা করব এই ভেবে ছবি দেখব না ভেবে আসুন ছোটোদের নিয়ে চিত্তবিনোদনের ছবি দেখতে বড়দিনে মাতি। একটা ছোটোদের ছবি যেখানে খুব কম হয়। অনেকের মতেই এই ছবির হাত ধরে, দেখা মিলতে চলেছে অন্য এক রাজের।এসফিএফ এন্টারটেইনম্যান্ট এর ব্যানারে ‘এডভেঞ্জার অব জোজো’র প্রযোজনা করছেন শ্রীকান্ত মেহতামহেন্দ্র সোনি।আর এ ছবির তুরুপের তাস দুই সেরা খুঁদে অভিনেতা যশোজিৎ আর সামিউল। ছবির চিত্রনাট্য গল্প বলা কত ভালো সেটা দেখতেই ছবিটা দেখতে হবে। আর ছোটোদের কাছে এ ছবি বড়দিন সেলিব্রেশনের আদর্শ ছবি। চুলচেরা বিশ্লেষণ না করে আনন্দ করতে ছবি দেখা যাক।

আসুন দেখি ‘অ্যাডভেঞ্চারস অফ জোজো’ র ট্রেলার।

Written By – শুভদীপ ব্যানার্জী