এটাই এখন টলিউডে হিট সিনেমার হিট রেসেপি!

বাংলা সিনেমার ডিরেক্টর, প্রোডিউসারদের মাথায় চাড়া দিল রুপোলি পর্দার মান উন্নয়নের বেশ কিছু পন্থা। সেই পন্থা গুলির মধ্যে অবশ্যই ছিল কিছু ক্রিয়েটিভ স্টোরি, অন্যরকম মিউজিক ট্র্যাক আর সাথে সুন্দর সুন্দর ফরেন লোকেশনে নায়ক-নায়িকার প্রেম বা বিরহ নিবেদনের নিদর্শন।

সময় পরিবর্তনশীল, আর এই পরিবর্তনের সাথে সাথে আমাদের পারিপার্শিক পরিস্থিতির বদল হওয়াটাও খুব প্রয়োজন।বিগত বহু বছর ধরে গতবাধা কিছু বাংলা সিনেমা যখন বক্স অফিসে একের পর এক ফ্লপ-এর নামে আছড়ে পড়ছিল, ঠিক তখনই বাংলা সিনেমার ডিরেক্টর, প্রোডিউসারদের মাথায় চাড়া দিল রুপোলি পর্দার মান উন্নয়নের বেশ কিছু পন্থা। সেই পন্থা গুলির মধ্যে অবশ্যই ছিল কিছু ক্রিয়েটিভ স্টোরি, অন্যরকম মিউজিক ট্র্যাক আর সাথে সুন্দর সুন্দর ফরেন লোকেশনে নায়ক-নায়িকার প্রেম বা বিরহ নিবেদনের নিদর্শন। সবমিলিয়ে কেটে গেছে প্রায় অনেকগুলি বছর, হালফিলে এই পন্থার মধ্যেই সাফল্য খুঁজে পেয়েছে টলিউড ইন্ডাস্ট্রি, সাথে আনন্দ পাচ্ছে রুপোলি পর্দার গোটা দর্শকমহলও।

আর আজ আমরা আপনাদের সাথে শেয়ার করবো এইরকমই ফরেন লোকেশনে শুট করা চারটি প্রেমের গান :

“তোমাকে ছেড়ে আমি – বিন্দাস”

২০১৪ সালে রাজীব কুমার বিশ্বাস পরিচালিত বাংলা ছবি “বিন্দাস”-এর এই সাউন্ড ট্র্যাকটির শুটিংয়ে গ্রিসের বিভিন্ন জায়গায় একসাথে দেখা গিয়েছিলো টলি হার্টথ্রব দেব-শ্রাবন্তী জুটির এক অভিনব ম্যাজিক।গানটি একটি পুরোনো বাংলাদেশীয় গান হলেও হাবিব ওয়াহিদ ও তুলসী কুমারের কণ্ঠে এই গানটির দুর্দান্ত প্রেসেনটেশন নজর কেড়েছে গোটা সিনেমহলের।

“আজ আমায় – পাওয়ার”

২০১৬সালে আবারও রাজীব কুমার বিশ্বাস পরিচালিত সুপারহিট ছবি “পাওয়ার”-এ জিৎ গাঙ্গুলি এবং অন্বেষা দত্ত গুপ্তের মিষ্টি কন্ঠে সোনা গিয়েছিল এই অসাধারণ গানটি। ব্যাংককের কিছু নজর কারা লোকেশানে একেবারে এক নতুন চমকে দেখা গিয়েছিল সুপারস্টার জিৎ-নুসরত জুটির রোমান্টিকাল এই সাউন্ডট্র্যাক।

“তোমাকে চাই – গ্যাংস্টার”

গত বছরই পরিচালক বিরসা দাসগুপ্ত পরিচালিত ছবি “গ্যাংস্টার” এর এই গানটিতে লিপ দিয়েছিল বাংলার প্রিয় শিল্পী অরিজিৎ সিং। টলিউডের সাইনিং ষ্টার মিমি চক্রবর্তী ও নতুন হিরো যশের রাফ এন্ড টাফ জুটির তুর্কির মতো জায়গায় গিয়ে দুঃসাহসিক প্রেমের গানে মুগ্ধ গোটা টলি-ইন্ডাস্ট্রি।

“বোঝাবো কি করে – হরিপদ ব্যান্ডওয়ালা”

২০১৬ সালে পরিচালক পথিকৃত বসুর রোমান্স কমেডি ছবি “হরিপদ ব্যান্ডওয়ালা”য় এই গানটি গেয়েছিলেন ইউথহ্যাঁঙ্ক অরিজিৎ সিং ও মিষ্টি গায়িকা অন্বেষা দত্ত গুপ্ত।টলিউডের অঙ্কুশ-নুসরাতের এই নতুন জুটির ইতালি প্রেমেও মজে গেছিলো টলিউডের সমস্ত দর্শকমহল।

তবে শুধু এই চারটি গানই নয়, আরো অনেক বিদেশী লোকেশানে শুট হয়েছে বহু আকর্ষণীয় টালিউড জুটির নিখুঁত প্রেমালাপের গান যেগুলি বরাবরই সিনেমহলের পছন্দ হয়েছে বলে ধারণা এবং টলি-ইন্ডাস্ট্রির এই ঘটনা স্পষ্টভাবে প্রমান করে যে ডিরেক্টর, প্রোডিউসারদের বাংলা ছবি সাফল্যের এই পন্থা কত বেশী সুদূরপ্রসারী।