সকালবেলা বাড়ির দরজা খুলে দেখলেন কার্ত্তিক ঠাকুর বসে! তারপর…

কার্তিক মাস এলেই বাড়িতে কার্তিক ফেলার ধুম পড়ে বাঙালিদের মধ্যে। তার ওপর যদি নতুন বিয়ে হয় তাহলে তো আর বলতেই হয়না।

‘ওপেন টি বায়োস্কোপ’র পর আবার ছবি তৈরির কাজে অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়। বায়োস্কোপের ছানবিন শেষ করে পুজোর রিলিজে চোখ পড়েছে তাঁর। তবে আর বাকিদের মতো মা দূর্গায় না গিয়ে কার্তিক নিয়েই মত্ত্ব এই তরুণ পরিচালক। বাঙালির বারো মাসে তেরো পার্বণ কেবল কথায় না কাজেও বিরাজমান। তেমনই কার্তিক মাস এলেই বাড়িতে কার্তিক ফেলার ধুম পড়ে বাঙালিদের মধ্যে। তার ওপর যদি নতুন বিয়ে হয় তাহলে তো আর বলতেই হয়না। এনিয়ে হইহুল্লোড় যতখানি হয়, ততখানি ঝামেলাও ডানা ঝেড়ে হাজির হয় অল্প বয়সীদের কাছে।

আরও পড়ুন : প্রজাপতির প্রথম গান উড়ছে ইউটিউবের ট্রেন্ডিংএ!

পরিচালক অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়ের কলম’ও ঠিক একই গল্প লিখে ফেলেছে। এই গল্প শাওন আর অন্তরের। কদিন আগেই তাদের বিয়ে হয়েছে। দায়িত্ব-জ্ঞানহীন জীবনের পাতা পাল্টে একটি নতুন অধ্যায় খুলে ফেলেছে তারা। সংসারে গুছিয়ে উঠতে খানিকটা সময় লেগেই থাকে। শাওন-অন্তর’ও সময় নিয়েছিলো। তবে তাদের নতুন পথ চলার মাঝে কার্তিক এসে হাজির হন। অর্থাৎ গতানুগতিক নিয়ম মিলিয়ে তাদের বাড়িতেও কার্তিক ফেলে পাড়ার লোকজন। এরপরের অংশেই সাসপেন্স রেখেদিয়েছেন ছবিটির পরিচালক। উইন্ডোজ এবং গণপতি প্রোডাকশনের প্রযোজনায় আগামী পুজোতেই বড়ো পর্দায় লাফ মারবে অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায়ের আগামী ছবি ‘প্রজাপতি বিস্কুট’।

ছবির মুখ্য চরিত্রে আদিত্য সেনগুপ্ত আর ঈশা সাহা ছাড়াও বিভিন্ন চরিত্রের দায়িত্ব পালন করবেন অপরাজিতা আঢ্য, কেয়া চট্টোপাধ্যায়, রজতাভ দত্ত এবং শান্তিলাল মূখার্জী’রা। শাওন আর অন্তরের নতুন জীবনে কার্তিক কি কীর্তি দেখায় তা ক্রমশ প্রকাশ্য।