গায়ক তিমির মিউজিক ভিডিও পরিচালনার আড়ালে কি এইরকম কিছু প্ল্যান করছেন?

Timir Biswas directed a musical short film

বিগত কয়েক বছরের রেকর্ড বলছে প্রত্যেক বছরের সেরা ১০টা গান বাছলে একটা না একটা তিমির বিশ্বাসের গান আসবেই আলোচনাতে সে সিনেমার গানে হোক কি নিজস্ব অ্যালবামে! গায়ক তিমির এখন বাংলার তরুণ শ্রোতাদের নিয়মিত সেন্সেশেন যা গাইছেন তাই নিয়ে হচ্ছে আলোচনা, শেয়ার, পোস্ট, রি-পোস্ট ইত্যাদি। এহেন প্রতিষ্ঠিত গায়ক যাকে স্টেজ শো’য়ের জন্য দুটো ভার্সেন রাখতে হয় একটি “ফকিরা” অন্যটি “তিমির বিশ্বাস লাইভ”, এইসবের পাশে তিনি আসছেন এবার পরিচালনাতে।

এটা নিয়ে বিস্ময়বোধক কথা বলা বা প্রশ্ন তোলা ভীষণই অস্বাভাবিক কারণ একজন শিল্পীর কোন একটি নির্ধারিত মাধ্যম থাকতে পারে না তার প্রতিভার বিকাশের জন্য, এই কথাকেই সমর্থন করে ফোনের ওপারে সৌমিক দাস ওরফে গ্যানা’দা বলেন, “ও তো গানও লিখেছে যখন মিউজিক স্ট্রিটে ছিল। ওর মধ্যে কিন্তু ভবিষ্যতের একজন ভালো পরিচালক হওয়ার সমস্ত লক্ষণ আছে, এই ‘কিছুদিন’র শুটে যেভাবে অভিনেতাদের ভোকাল অ্যাক্টিং করে দেখাচ্ছিল, সেটা মারাত্মক! এই গুনগুলো কিন্তু তিমিরের মধ্যে আগে দেখি নি…” এই কথার সূত্র ধরে একটা ব্যাপারে আলোকপাত করা যেতে পারে যে তিমির বিশ্বাস আগে চাইলেই মিউজিক ভিডিও পরিচালনা করতে পারতেন, যেমন ধরুন ২০১৭তে রূপম ইসলামের মিউজিক ভিডিও “দানিকেন”র জন্য তিনি নিজেই পরিচয় করিয়ে দিয়েছিলেন পরিচালক বন্ধু শমিক রায় চৌধুরী’কে।

এটা একটা বাইরে থেকে পর্যবেক্ষণ, ভেতরের সমীকরণ সত্যি নাও হতে পারে কিন্তু এই মুহূর্তে “কিছুদিন” রিলিজের আগে পরিষ্কার উনি হয়তো প্ল্যানিং করছেন বড় কিছুর জন্যই, সম্ভবত একটি পূর্ণদৈর্ঘ্যের বাংলা সিনেমা! অবাক হলেন শুনে? প্রমান দিচ্ছি, তার আগে একটু জেনে নেওয়া যাক এই “কিছুদিন” নিয়ে কিছু কথা। সৌমিক দাস ওরফে গ্যানা’দা-তিমির বিশ্বাস জুটি কিন্তু আগেও কাজ করেছে যেমন ধরুন “হচ্ছে সকাল”, এটা না দেখে “কিছুদিন” দেখবেন না কারণ তবেই আপনাদের প্রত্যাশার পারদ ওপরের দিকে উঠবে! এই গানের কথা ও সুর দিয়েছেন সৌমিক দাস আর গেয়েছেন এবং মিউজিক ভিডিওটি পরিচালনা করেছেন তিমির বিশ্বাস, যার প্রথম টিজারটি দেখলে বুঝতে পারবেন গল্পটা একটি বৃদ্ধাশ্রমকে ঘিরে। গানের লেখকের সাথে কথা বলে বোঝা গেল, এটা কিন্তু কোন দুঃখ-কষ্টের গল্প নয়, বৃদ্ধাশ্রমে থাকাটা মোটেই কাম্য না হলেও যাঁরা ওখানে থাকেন তাঁরা নিজেদের মত করেই নতুনভাবে বাঁচার তাগিদ খুঁজে পেয়ে যান, সেটা বন্ধুত্ব হতে পারে, প্রেমও হতে পারে…ওনাদের দূর থেকে দেখে আফসোসমূলক মন্তব্য করার কোন মানে নেই কারণ নিজেদের জগতে ওঁরাই রাজা!

Soumik Das
Soumik Das (Gyana)

ইতিমধ্যেই টিজার-পোস্টার মানুষের মধ্যে একটা উদ্দীপনা তৈরি করেছে, অপেক্ষার আর ‘কিছুদিন’, ১৪ই এপ্রিল আসছে এই মিউজিক ভিডিও। ফিরে আসা যাক ‘পরিচালক’ তিমির বিশ্বাসের কথায়, উনি নিজে অনেকবার বলেছেন গানের আগে ভালোবাসা থিয়েটার মানে ‘অন্ধপ্রেমিক’ যাকে বলে সেই জায়গা থেকে কোন অভিনেতাকে তার পাঠ বুঝিয়ে দিতে খুব একটা বেগ পেতে হবে না গায়ক বিশ্বাস’কে, এটা প্রমানিত আসানসোলে “কিছুদিন”র শুটিং এ। আবার কিছুদিন আগে প্রকাশিত বাংলার এক বিখ্যাত দৈনিকের সাক্ষাৎকারে জানিয়েছেন আগামী দিনে একটি ব্যান্ডের মিউজিক ভিডিও বানাতে চলেছেন তিনি।

তবে কি উনি ছোট ছোট কাজগুলোর মাধ্যমে নিজেকে তৈরি করছেন দু’ঘণ্টার যুদ্ধে নামার জন্য? পরিচালনার প্রতি এই অদম্য আগ্রহ অবশ্যই জানাতে বাধ্য করলো সৌমিক দাসের কাছে যে, আগামীদিনে কি ফিচার সিনেমার পরিচালক হিসেবে আমরা পেতে চলেছি তিমির বিশ্বাস’কে? ফোনের ওপারে রহস্যজনক হাসি নিয়ে বলে ওঠেন, “ঘনিষ্ঠমহলে আমিও শুনেছি এইরকম একটা স্ক্রিপ্টের ব্যাপারে…” ওদিকে তিমির বিশ্বাস’কে ফোনে ব্যাপারটা নিয়ে জিজ্ঞেস করা হলেও কোন সদুত্তর দিলেন না কিন্তু তিমির ভক্তদের কাছে এটা অবশ্যই সুখবর হবে যদি ওনার গিটারের পাশে একটা ১২০ পাতার স্ক্রিপ্ট পড়ে থাকে তো! এবং বলাই যায় এই সুখবর তাড়াতাড়ি আসলেও আসতে পারে অন্তত উপরের সমীকরণ তাই বলছে! তবে তার আগে আপনাদের সবাইকে অবশ্যই নজর রাখতে হবে ১৪ই এপ্রিলের উপর, আর তো মাত্র “কিছুদিন”…